সোমবার , ২৫ জুলাই ২০২২ | ১২ই জ্যৈষ্ঠ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
  1. অর্থনীতি
  2. আইন-আদালত
  3. আন্তর্জাতিক
  4. উপ-সম্পাদকীয়
  5. কৃষি ও প্রকৃতি
  6. ক্যাম্পাস
  7. খেলাধুলা
  8. চাকরি
  9. জাতীয়
  10. জীবনযাপন
  11. তথ্যপ্রযুক্তি
  12. দেশগ্রাম
  13. দেশজুড়ে
  14. ধর্ম
  15. নারী ও শিশু

মনপুরায় ৩ মেগাওয়াট হাইব্রিড বিদ্যুৎকেন্দ্র স্থাপনে চুক্তি

প্রতিবেদক
নিউজ ডেস্ক
জুলাই ২৫, ২০২২ ৩:০৪ অপরাহ্ণ

ভোলার মনপুরা দ্বীপের জন্য তিন মেগাওয়াট সোলার-ব্যাটারি-ডিজেল সম্বলিত হাইব্রিড বিদ্যুৎকেন্দ্র স্থাপনে চুক্তি সই হয়েছে।

সোমবার (২৫ জুলাই) বিদ্যুৎ ভবনে এ চুক্তি হয়। ওয়েস্ট জোন পাওয়ার ডিস্ট্রিবিউশন কোম্পানি লিমিটেড (ওজোপাডিকো) ও ওয়েস্টার্ন মনপুরা সোলার পাওয়ার লিমিটেডের (ডব্লিউএমএসপিএল) সঙ্গে এ চুক্তি সই হয়।

এতে ইমপ্লিমেন্টেশন অ্যাগ্রিমেন্টের (আইএ) জন্য বিদ্যুৎ বিভাগের পক্ষে যুগ্মসচিব নিরোদ চন্দ্র মন্ডল ও পাওয়ার পার্চেজ অ্যাগ্রিমেন্টের (পিপিএ) পক্ষে ওজোপাডিকোর সচিব আলমগীর কবির এবং ডব্লিউএমএসপিএলের পক্ষে প্রতিষ্ঠানটির ব্যবস্থাপনা পরিচালক বশির আহমেদ চুক্তিতে সই করেন।

এসময় প্রধান অতিথির বক্তব্যে বিদ্যুৎ সচিব মো. হাবিবুর রহমান বলেন, আগামী দিনের জ্বালানি হলো নবায়ণযোগ্য জ্বালানি। নবায়ণযোগ্য জ্বালানির প্রসারে সরকার নানাভাবে সহযোগিতা করছে। ট্রানজিশন টু গ্রিন এনার্জির প্রতি সরকারের প্রতিশ্রুতি বাস্তবায়নেও নবায়ণযোগ্য জ্বালানির প্রসারকে উৎসাহিত করা হচ্ছে। মনপুরার এ বিদ্যুৎকেন্দ্রটি অনেকদিক থেকেই অন্যরকম। সোলারের সঙ্গে ব্যাটারি এবং ডিজেল থাকবে। তবে কোনো অবস্থায় ডিজেল থেকে ১০ শতাংশের বেশি বিদ্যুৎ উৎপাদন করা যাবে না।

বিদ্যুৎ সচিব আরও বলেন, নবায়ণযোগ্য জ্বালানি থেকে আরও বিদ্যুৎ পেলে বর্তমান পরিস্থিতি মোকাবিলা করতে সহজ হতো। এ বিদ্যুৎকেন্দ্র থেকে ওই এলাকার জনগণ গ্রিডের মানসম্পন্ন বিদ্যুৎ পাবে।

চুক্তি সই অনুষ্ঠানে বলা হয়, ২০ বৎসর মেয়াদি এ বিদ্যুৎকেন্দ্র হতে প্রতিদিন কমপক্ষে ৩০ হাজার কিলোওয়াট আওয়ার বিদ্যুৎ পাওয়া যাবে। মনপুরা দ্বীপের ২০ হাজার ৪৮৩ জন গ্রাহক বাংলাদেশ এনার্জি রেগুলেটরি কমিশনের (বিইআরসি) নির্ধারিত রেটে বিদ্যুৎ সুবিধা পাবে। ফলে ওই দ্বীপে কর্মসংস্থান সৃষ্টি, শিল্পায়ন, পর্যটনশিল্পের বিকাশসহ জনগণের জীবনযাত্রার মানোন্নয়ন ঘটবে।

অনুষ্ঠানে অন্যান্যের মধ্যে বিদ্যুৎ উন্নয়ন বোর্ডের (পিডিবি) চেয়ারম্যান মো. মাহবুবুর রহমান, ওজোপাডিকোর চেয়ারম্যান সেলিম আবেদ, টেকসই ও নবায়নযোগ্য জ্বালানি উন্নয়ন কর্তৃপক্ষের (স্রেডা) সাবেক চেয়ারম্যান মোহাম্মদ আলাউদ্দিন, ওজোপাডিকোর ব্যবস্থাপনা পরিচালক ইঞ্জিনিয়ার আজহারুল ইসলাম ও প্রকল্প পরিচালক মো. মতিউর রহমান বক্তব্য দেন।

     

    সর্বশেষ - দেশজুড়ে