শুক্রবার , ২ সেপ্টেম্বর ২০২২ | ১৬ই জ্যৈষ্ঠ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
  1. অর্থনীতি
  2. আইন-আদালত
  3. আন্তর্জাতিক
  4. উপ-সম্পাদকীয়
  5. কৃষি ও প্রকৃতি
  6. ক্যাম্পাস
  7. খেলাধুলা
  8. চাকরি
  9. জাতীয়
  10. জীবনযাপন
  11. তথ্যপ্রযুক্তি
  12. দেশগ্রাম
  13. দেশজুড়ে
  14. ধর্ম
  15. নারী ও শিশু

বাংলাদেশের জুয়েলারি খাতে বিনিয়োগে আসছে আরও দুই ভারতীয় কোম্পানি

প্রতিবেদক
নিউজ ডেস্ক
সেপ্টেম্বর ২, ২০২২ ১:৩৩ অপরাহ্ণ

নিটল নিলয় গ্রুপের হাত ধরে গত ২৮ জুলাই বাংলাদেশে আসে ভারতের বিখ্যাত জুয়েলারি ব্র্যান্ড মালাবার গোল্ড অ্যান্ড ডায়মন্ড। বিশ্বমানের জুয়েলারি ফ্যাক্টরি স্থাপন করতে নারায়ণগঞ্জের মদনপুরে ভিত্তিপ্রস্তরও স্থাপন করেছে প্রতিষ্ঠানটি।

এখন ভারতের আরও দুই কোম্পানি একই খাতে বাংলাদেশে বিনিয়োগে আসছে। প্রতিষ্ঠান দুটি হলো- রাজস্থানের দারকা জেমস লিমিটেড এবং নিরাজ জুয়েলার্স।

ইতোমধ্যে বাংলাদেশের নাজাবি গ্রুপ এবং মান্না সরদার প্রাইভেট লিমিটেডের সঙ্গে আগ্রহপত্র (ইওআই) সই করেছে প্রতিষ্ঠান দুটি। ভারত-বাংলাদেশ চেম্বার অব কমার্স অ্যান্ড ইন্ডাস্ট্রি (আইবিসিসিআই) সূত্রে এ তথ্য জানা গেছে।সূত্র জানায়, গত ২৩ আগস্ট ভারতের রাজস্থানে বাণিজ্য সংগঠন কনফেডারেশন অব ইন্ডিয়ান ইন্ডাস্ট্রি (সিআইআই) এবং ভারত-বাংলাদেশ চেম্বার অব কমার্স অ্যান্ড ইন্ডাস্ট্রির (আইবিসিসিআই) যৌথ সম্মেলন হয়। এতে কোম্পানিগুলো বাংলাদেশে বিনিয়োগের এ আগ্রহ দেখায়।

এরপর ২৮ আগস্ট ভারত সফর থেকে ফিরে সম্মেলনের সফলতা জানিয়ে সংবাদ সম্মেলনে আসেন বাংলাদেশ বিনিয়োগ উন্নয়ন কর্তৃপক্ষের (বিডা) চেয়ারম্যান সিরাজুল ইসলাম।

বিডা চেয়ারম্যান বলেন, ‘কিছুদিন আগে মালাবার গোল্ডের সঙ্গে নিটল নিলয় গ্রুপের বড় জয়েন্ট ভেঞ্চার হয়েছে। তাদের দেখাদেখি এ খাতে ভারতীয় ব্যবসায়ীদের আগ্রহ বাড়ছে। ব্যবসায়ীরা বাংলাদেশে ব্যবসার সম্ভাবনার কথা জেনে এখানে আসতে আগ্রহী হয়েছেন। বাংলাদেশে বিনিয়োগ করলে কী কী সুযোগ-সুবিধা তারা পাবেন এ বিষয়ে আমি ভারতীয় ব্যবসায়ীদের বলেছি।’

জানা গেছে, বাংলাদেশে জুয়েলারি কারখানা স্থাপন করতে ভারতের দারকা জেমস লিমিটেড এবং নিরাজ জুয়েলার্স যৌথভাবে বাংলাদেশের নাজাবি গ্রুপের সঙ্গে কারখানা স্থাপন করতে আগ্রহী। আবার নিরাজ জুয়েলার্স দেশের মান্না সরদার প্রাইভেট লিমিটেডের সঙ্গেও যৌথভাবে ব্যবসা করতে চায়।

নাজাবি গ্রুপের চেয়ারম্যান নাসিমা জাহান বিজলী (বিনতী) সংবাদমাধ্যমকে বলেন, ‘বিষয়টি নিয়ে এখনই কিছু জানাতে চাচ্ছি না। একটু গুছিয়ে নেই, তারপর সব জানাব। আমরা এখনো মার্কেট স্ট্যাডি করছি। যে সেগমেন্ট নিয়ে কাজ করছি ওইটাতে যারা কাজ করছেন, তাদের কী ক্যাপাসিটি আছে কিংবা আমরা কীভাবে কাজ করতে পারি, সেটা নিয়ে মার্কেট স্ট্যাডি করব। সবকিছু প্রাথমিক পর্যায়ে রয়েছে।’

 

সর্বশেষ - দেশজুড়ে