মঙ্গলবার , ২০ সেপ্টেম্বর ২০২২ | ৩রা বৈশাখ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
  1. অর্থনীতি
  2. আইন-আদালত
  3. আন্তর্জাতিক
  4. উপ-সম্পাদকীয়
  5. কৃষি ও প্রকৃতি
  6. ক্যাম্পাস
  7. খেলাধুলা
  8. চাকরি
  9. জাতীয়
  10. জীবনযাপন
  11. তথ্যপ্রযুক্তি
  12. দেশগ্রাম
  13. দেশজুড়ে
  14. ধর্ম
  15. নারী ও শিশু

মিয়ানমারে স্কুলে সামরিক হেলিকপ্টার থেকে গুলি, শিক্ষার্থীসহ নিহত ১৩

প্রতিবেদক
নিউজ ডেস্ক
সেপ্টেম্বর ২০, ২০২২ ১:৫৪ অপরাহ্ণ

মিয়ানমারের একটি স্কুলে সামরিক হেলিকপ্টার থেকে গুলিবর্ষণের ঘটনা ঘটেছে। স্কুলটির একজন কর্মকর্তা এবং একজন ত্রাণকর্মীর বরাত দিয়ে এবিসি নিউজ জানিয়েছে, দেশটির সেনাবাহিনীর চালানো অভিযানে সাত শিক্ষার্থীসহ মোট ১৩ জন নিহত হয়েছে। এ ঘটনায় আরো বেশ কয়েকজন আহত হয়েছে।

মিয়ানমারে গণতন্ত্রপন্থী বিদ্রোহীদের ওপর এবং তাদের সহযোগীদের ওপর সামরিক সরকারের আক্রমণে প্রায়ই বেসামরিক নাগরিক হতাহতের ঘটনা ঘটে।

আন্তর্জাতিক গণমাধ্যমগুলো বলছে, গত শুক্রবার মিয়ানমারের সামরিক বাহিনীর হেলিকপ্টার যখন ওই স্কুলে হামলা চালায়, সেসময় ক্লাস চলছিল। উপর থেকে একনাগাড়ে গুলিবর্ষণ করা হয়েছে। এতে হতাহতের ঘটনাটি ঘটে।

মিয়ানমারের সেনাবাহিনী গত বছরের ফেব্রুয়ারিতে অং সান সু চির নির্বাচিত সরকারকে ক্ষমতাচ্যুত করে ক্ষমতা দখল করে। তখন থেকে এই সময়ের মধ্যে গত শুক্রবার সাগাইং অঞ্চলের তাবায়িন এলাকায় হেলিকপ্টার থেকে হামলা চালিয়ে সর্বোচ্চ সংখ্যক শিশুর প্রাণ কেড়ে নেওয়ার ঘটনা ঘটল।

গত বছর সেনাবাহিনী ক্ষমতা দখল করার পর মিয়ানমারে ব্যাপক অহিংস বিক্ষোভের সূত্রপাত হয়। সামরিক বাহিনী এবং পুলিশ মারাত্মকভাবে বল প্রয়োগ করে বিক্ষোভকারীদের প্রতিক্রিয়া দেখায়। ফলে দেশটির শহর ও গ্রামাঞ্চলে সশস্ত্র প্রতিরোধ ছড়িয়ে পড়ে।

সামাজিক যোগাযোগের মাধ্যমগুলোতে গত শুক্রবারের হামলা ও সেনাবাহিনীর তল্লাশি অভিযানের ছবি পোস্ট করেছেন অনেকেই। সেসব ছবিতে ওই স্কুলের বুলেটবিধ্বস্ত দেয়াল ও বিভিন্ন স্থানে রক্তের ছোপ ছোপ দাগ দেখা গেছে।

এক বিবৃতিতে মিয়ানমারের সামরিক বাহিনী জানিয়েছে, সশস্ত্র বিদ্রোহী গোষ্ঠী কাচিন ইন্ডিপেন্ডেন্ট আর্মি (কিয়া) ও পিপলস ডেমোক্রেটিক ফোর্সের (পিডিএফ) ‘সন্ত্রাসীরা’ দেশটির মধ্যাঞ্চলীয় প্রদেশ সাগাইংয়ের লেত ইয়েত কোং গ্রামের ওই স্কুলটিতে আশ্রয় নিয়েছে। সেই তথ্যের ভিত্তিতে ওই স্কুলে অভিযান চালানো হয়েছে।

সামরিক বাহিনীর আরো দাবি, স্কুলটিতে অভিযান চালানোর জন্য সামরিক বাহিনী সেখানে গেলে কিয়া ও পিডিএফের সন্ত্রাসীরা সেনা সদস্যদের ওপর অতর্কিত হামলা চালায়। আত্মরক্ষার জন্যই সেনাবাহিনী গুলিবর্ষণ করতে বাধ্য হয়েছে বলেও দাবি করা হয়েছে।
সূত্র: এবিসি নিউজ, রয়টার্স

সর্বশেষ - দেশজুড়ে

আপনার জন্য নির্বাচিত