মঙ্গলবার , ৪ অক্টোবর ২০২২ | ১০ই ফাল্গুন, ১৪৩০ বঙ্গাব্দ
  1. অর্থনীতি
  2. আইন-আদালত
  3. আন্তর্জাতিক
  4. উপ-সম্পাদকীয়
  5. কৃষি ও প্রকৃতি
  6. ক্যাম্পাস
  7. খেলাধুলা
  8. চাকরি
  9. জাতীয়
  10. জীবনযাপন
  11. তথ্যপ্রযুক্তি
  12. দেশগ্রাম
  13. দেশজুড়ে
  14. ধর্ম
  15. নারী ও শিশু

ইউক্রেন: সহায়তা পেলেও ন্যাটো-ইইউর সদস্যপদ এখনো বহু দূর

প্রতিবেদক
নিউজ ডেস্ক
অক্টোবর ৪, ২০২২ ৩:৪৩ অপরাহ্ণ

রাশিয়া ইউক্রেনের প্রায় ১৫ শতাংশ এলাকা নিজেদের অন্তর্ভুক্ত ঘোষণা করার পর ন্যাটোর সদস্য হতে তোড়জোড় শুরু করেছিল কিয়েভ প্রশাসন। রুশ প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিনের আনুষ্ঠানিক ঘোষণার পরপরই ইউক্রেনকে দ্রুত ন্যাটোর সদস্য করতে আবেদন করেন দেশটির প্রেসিডেন্ট ভলোদিমির জেলেনস্কি। তার আগে ইউরোপীয় ইউনিয়নের সদস্য হওয়ারও উদ্যোগ নিয়েছিলেন তিনি।

রুশ আগ্রাসনের মুখে ইউক্রেনের প্রতি পূর্ণ সংহতি এবং সামরিক ও অর্থনৈতিক সহায়তা চালিয়ে গেলেও দেশটিকে আনুষ্ঠানিকভাবে ন্যাটো বা ইইউ’র মতো জোটে স্থান দিতে প্রস্তুত নয় পশ্চিমা বিশ্ব। জেলেনস্কির আবেদনে সাড়া দিয়ে ন্যাটোর কিছু সদস্য ইউক্রেনকে স্বাগত জানানোর পক্ষে মত দিলেও এমন সম্ভাবনাকে আপাতত অবাস্তব বলেই মনে করছে যুক্তরাষ্ট্র-জার্মানিসহ বেশিরভাগ সদস্য।

ন্যাটো মহাসচিব জেন্স স্টলটেনবার্গ এ প্রসঙ্গে মনে করিয়ে দিয়েছেন, জোটের ৩০টি সদস্য দেশের সম্মতি ছাড়া কোনো নতুন সদস্য গ্রহণ করা সম্ভব নয়। এই মুহূর্তে কেবল পূর্ব ইউরোপ ও বাল্টিক অঞ্চলের দেশগুলোই ইউক্রেনকে ন্যাটোর সদস্য করতে আগ্রহ দেখাচ্ছে।

ন্যাটোর মতো ইইউ’র পূর্ণ সদস্য হওয়ার প্রক্রিয়াও যে ইউক্রেনের জন্য দীর্ঘ হবে, সে বিষয়ে কোনো সংশয় নেই। তবে এমন পরিস্থিতিতে ভিন্নভাবে দেশটির পাশে দাঁড়াতে নতুন নতুন উদ্যোগ নিচ্ছে পশ্চিমারা।

জার্মানির ‘ডেয়ার স্পিগেল’ পত্রিকার তথ্যমতে, যত দ্রুত সম্ভব ১৫ হাজার ইউক্রেনীয় সৈন্যের প্রশিক্ষণের ব্যবস্থা করতে রাজি হয়েছে ইউরোপীয় ইউনিয়ন। আগামী সপ্তাহে ব্রাসেলসে সেই পরিকল্পনা চূড়ান্ত হবে। পোল্যান্ডে হতে পারে এই কর্মসূচির সদর দপ্তর। প্রশিক্ষণের কিছু অংশ অন্য দেশেও সম্পন্ন হতে পারে বলে জানা গেছে।

এর পাশাপাশি ইউক্রেনের চিকিৎসক, প্রকৌশলীসহ অন্যান্য বিশেষজ্ঞদের প্রশিক্ষণের দায়িত্ব নেবে জার্মানি। গত আগস্ট মাসে জার্মান চ্যান্সেলর ওলাফ শলৎজ জানিয়েছিলেন, জার্মানিতে ইউক্রেনীয় সৈন্যদেরও প্রশিক্ষণের ব্যবস্থা করা হবে।

ইউক্রেন যুদ্ধে সরাসরি জড়িয়ে না পড়ার বিষয়ে এখনো সতর্ক পশ্চিমা সামরিক জোট ন্যাটো। দেশটিকে দ্রুত সদস্য করা তো দূরের কথা, ব্যাটেল ট্যাংকের মতো আক্রমণাত্মক ভারী সামরিক সরঞ্জাম দিতেও প্রস্তুত নয় এই জোট। কয়েক মাস যাবৎ ইউক্রেনকে বিপুল সামরিক সরঞ্জাম সরবরাহ করতে গিয়ে পশ্চিমা বিশ্বের নিজস্ব অস্ত্রভাণ্ডারেও টান পড়ছে।

সূত্র: ডয়েচে ভেলে

সর্বশেষ - দেশজুড়ে

আপনার জন্য নির্বাচিত