শনিবার , ২২ অক্টোবর ২০২২ | ১৩ই ফাল্গুন, ১৪৩০ বঙ্গাব্দ
  1. অর্থনীতি
  2. আইন-আদালত
  3. আন্তর্জাতিক
  4. উপ-সম্পাদকীয়
  5. কৃষি ও প্রকৃতি
  6. ক্যাম্পাস
  7. খেলাধুলা
  8. চাকরি
  9. জাতীয়
  10. জীবনযাপন
  11. তথ্যপ্রযুক্তি
  12. দেশগ্রাম
  13. দেশজুড়ে
  14. ধর্ম
  15. নারী ও শিশু

মুখের সামনে ‘ডেভিলস ব্রেথ’ ধরার পর সোনার গয়না খুলে দেন ২ নারী

প্রতিবেদক
নিউজ ডেস্ক
অক্টোবর ২২, ২০২২ ৪:৪৩ পূর্বাহ্ণ

ভয়াবহ মাদক স্কোপোলামিন, অপরাধ জগতে যার নাম ডেভিলস ব্রেথ (শয়তানের শ্বাস)। সেই মাদক টার্গেট করা নারী বা পুরুষের শ্বাসে প্রয়োগের মাধ্যমে ‘মাইন্ড কন্ট্রোল’ করে তাদের সর্বস্ব লুটে নিচ্ছে একটি চক্র।

বৃহস্পতিবার (২০ অক্টোবর) দুপুরে যশোরের অভয়নগরে এমনই একটি চক্রের খপ্পরে পড়ে আনুমানিক দেড় লাখ টাকার স্বর্ণালঙ্কার খুইয়েছেন দুই নারী। এ ঘটনায় শুক্রবার (২১ অক্টোবর) বিকালে অভয়নগর থানায় লিখিত অভিযোগ দেওয়া হয়েছে।

ভুক্তভোগী দুই নারী হলেন- উপজেলার সরখোলা গ্রামের আব্দুল্লাহ আল মামুনের স্ত্রী রুকাইয়া রিশা ও খুলনার ফুলতলা উপজেলার দামোদর গ্রামের আব্দুল মান্নান মোড়লের স্ত্রী কাকলী খাতুন। সম্পর্কে রুকাইয়া রিশা কাকলী খাতুনের ননদ।

কাকলী খাতুন বলেন, ‘বৃহস্পতিবার বেলা ১১টায় ফুলতলা শ্বশুরবাড়ি থেকে অভয়নগরে বাবার বাড়ি যাওয়ার উদ্দেশ্যে আমি ও আমার ননদ ফুলতলা বাজারে অটোরিকশা স্ট্যান্ডে পৌঁছাই। সেখান থেকে অভয়নগরের নওয়াপাড়াগামী একটি অটোরিকশায় উঠি। এ সময় বোরকা পরা এক নারীও আমাদের পাশে বসেন। এরপর ওই নারী আমাদের সঙ্গে বিভিন্ন ধরণের কথা বলতে শুরু করেন। নওয়াপাড়ার কাছাকাছি পৌঁছালে তিনি আমাদের মুখের সামনে একটি কাপড় নাড়িয়ে কথা বলা বন্ধ করেন। এরপর থেকে আমরা ওই নারীর কথায় চলতে শুরু করি।’

তিনি আরও বলেন, ‘দুপুর ১২টার দিকে নওয়াপাড়া নূরবাগে পৌঁছালে ওই নারী আমাদের একটি ভ্যানে উঠতে বলেন। আমার মনে আছে ওই সময় ভ্যানচালককে সরখোলা গ্রামে আমার বাবার বাড়ির ঠিকানা বলেছিলাম। পরে নওয়াপাড়া রেল স্টেশন সংলগ্ন রেলগেট থেকে ওই নারীর এক সহযোগী ভ্যানে ওঠেন। বুইকারা স্কুলের কাছে ফাঁকা স্থানে পৌঁছালে তারা আমাদের গলায়, কানের ও হাত থাকা স্বর্ণগুলো খুলে দিতে বলেন। আমরা দুজন তখন স্বর্ণালঙ্কারগুলো খুলে ওই নারীর হাতে দিয়েছিলাম। এরপর তারা সরখোলার একটি রাস্তায় আমাদের নামিয়ে দিয়ে চলে যায়। খুলে দেওয়া স্বর্ণালঙ্কারের মূল্য আনুমানিক দেড় লাখ টাকা।’

রুকাইয়া রিশার স্বামী আব্দুল্লাহ আল মামুন বলেন, ‘দুপুর ২টার দিকে খবর পেয়ে তাদের বাড়ি নিয়ে এলে ঘুমিয়ে পড়েন। ওইদিন রাতে তাদের ঘুম ভাঙলে সবকিছু জানতে পারি। এ নিয়ে শুক্রবার বিকালে অভয়নগর থানায় লিখিত অভিযোগ দিয়েছি।’

অভয়নগর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) একেএম শামীম হাসান বলেন, ‘এ ধরনের মাদক সম্পর্কে আমার কিছুই জানা নেই। অভিযোগ খতিয়ে দেখে তদন্তপূর্বক ব্যবস্থা নেওয়া হবে।’

সর্বশেষ - দেশজুড়ে

আপনার জন্য নির্বাচিত

বিএনপির কার্যালয়ে মিললো খিচুড়ি-টাকা, ১৬০ বস্তা চাল

আখেরি মোনাজাতে শেষ হলো বিশ্ব ইজতেমার প্রথম পর্ব

সরকার আইনের শাসন প্রতিষ্ঠা করেছে : প্রধানমন্ত্রী

লুটপাটের দায় চাপিয়ে দিয়ে বিদ্যুতের দাম বাড়ানো হচ্ছে: গণতন্ত্র মঞ্চ

মানবতাবিরোধী অপরাধ বাগেরহাটের ৭ জনের বিরুদ্ধে মামলার রায় ৩০ নভেম্বর

জনগণের স্বার্থে আদানির সঙ্গে বিদ্যুৎ চুক্তি বাতিল করুন: টিআইবি

শামীম ওসমানের নির্দেশে ৩০০ বাসে চড়ে সমাবেশে ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরা

পরিবর্তন ছাড়া মালয়েশিয়া টিকবে না: আনোয়ার ইব্রাহিম

পাকিস্তানের আরও এক ক্রিকেটার হাসপাতালে

বঙ্গবাজারে অগ্নিকাণ্ডের সার্বিক খোঁজখবর রাখছেন প্রধানমন্ত্রী